“ইয়েতি অভিযান” ট্রেলারে উপেক্ষিত ফেরদৌস এবং মিম!

অনেকটা ঢাকঢোল পিটিয়েই যৌথ প্রযোজনার ‘ইয়েতি অভিযান’ সিনেমায় অভিনয়ের ঘোষণা দিয়েছিলেন ফেরদৌস এবং মিম। কিন্তু শেষ পর্যন্ত যৌথ প্রযোজনার সিনেমায় উপেক্ষিত থাকার ঘটনার পুনরাবৃত্তি ঘটলো! কারন গত শনিবার প্রকাশ করা ট্রেলারে মাত্র এক সেকেন্ডের জন্য দেখা গেছে ফেরদৌসকে। আর পুরো ট্রেলারে কোনো অস্তিত্বই খুঁজে পাওয়া যায়নি বিদ্যা সিনহা মিমের।

তবে মিম ছবিটির শুটিং চলাকালে বেশ উচ্ছ্বাসের সাথে দেশের সংবাদমাধ্যমে সাক্ষাতকার দিয়েছিলেন। ট্রেলারে মিমকে না দেখতে পেয়ে বেশ সমালোচনা করছেন এ দেশে তার ভক্তরা। বলছেন, মিমরা ওই দেশের ছবি করতে অনেক ঢাক-ঢোল পিটিয়ে যান, কিন্তু দিনশেষে ছবিতে তাদের চরিত্রের গুরুত্ব অনেক কম থাকে।

শুধু তাই নয়, বাংলা সিনেমার সাধারন দর্শকদের মতে তথাকথিত যৌথ প্রযোজনার সিনেমায় শাকিব খান ছাড়া আর কোন বাংলাদেশী শিল্পী তেমন গুরুত্ব পাননা। এক্ষেত্রে শাকিব খান অভিনীত যৌথ প্রযোজনার ‘শিকারি’ এবং ‘নবাব’ এর উদাহরণ টানেন। অনেকের মতে যেখানে এই দুইটি সিনেমার ট্রেলারে এবং গল্পে শাকিব খানের একক প্রাধান্য ছিলো, সেখানে অন্য সিনেমাগুলোতে আমাদের দেশী শিল্পীদের খোঁজেই পাওয়া যায়না।

২ মিনিট ৪২ সেকেন্ডের ট্রেলারে এভারেস্ট অভিযান ও এতে একজন অভিযাত্রীর মৃত্যু রহস্যকে ঘিরে গল্প দেখানো হয়েছে। ‘তোমার থেকে একটু ছোট সে হল তিযুতি, তোমার থেকে একটু বড় সে হল মিতি, তার যে একেবারে বড় সে হল ইয়েতি’— ট্রেলারের সংলাপগুলোতে ছবিটির নামকরণের রহস্য লুকিয়ে রেখেছেন।

খ্যাতনামা উপন্যাসিক সুনীল গঙ্গোপাধ্যায়ের বিখ্যাত ‘কাকাবাবু’ সিরিজ থেকে নির্মিত হয়েছে যৌথ প্রযোজনার চলচ্চিত্র ‘ইয়েতি অভিযান’। ছবিটি পরিচালনা করেছেন ভারতের জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার বিজয়ী পরিচালক সৃজিত মুখার্জী। ছবিটিতে অভিনয় করছেন প্রসেনজিৎ, যিশু সেনগুপ্ত, ফেরদৌস, মিমসহ এক ঝাঁক দুই বাংলার তারকা।

Comments

comments

Scroll To Top