মডেলিংঃ গ্ল্যামার আর আলোকিত দুনিয়ার আড়ালে এক অন্ধকার জীবন

Indian fashion industry can't afford me-model Ujjwala Raut3

ভারতে র‌্যাম্পের গ্ল্যামার আর লাইমলাইটের আড়ালে লুকিয়ে আছে এক অন্য পৃথিবী। যেখানে যৌনতা উড়ে বেড়ায় সর্বক্ষণ, সর্বত্র। নানাভাবে, নানা রূপে। সেই সব ফাঁস করলেন এক মডেলই।

একটি ইংরেজি পত্রিকা এবং ওয়েবসাইটে সদ্য প্রকাশিত হয়েছে ভারতের বেশ কয়েকজন অভিজ্ঞ নারী মডেলের সাক্ষাৎকার। সেই সাক্ষাৎকারে একের পর এক বিস্ফোরক কথা বলেছেন তারা। তবে প্রকাশ করা হয়নি তাদের পরিচয়।

‘১৬ বছর ধরে মডেলিংয়ের সঙ্গে যুক্ত আছি। এখন আর কিছুই আমাকে অবাক করে না। মডেলরা বাজে পার্টি করে, ধূমপান করে, ড্রিংক করে, কোকেন নেয়। গাদা গাদা অ্যাফেয়ার আর ওয়ান নাইট স্ট্যান্ড কোনো ব্যাপারই নয় তাদের কাছে। অনেকে আবার বিয়ে করে, বাচ্চাকাচ্চা হয়ে যায়। এই জগতে সবই চলে’- নিজের অভিজ্ঞতা থেকে বললেন এক নারী মডেল।

আরেক মডেল বলেন, ‘বেঙ্গালুরুতে একটি ফ্যাশন উইকের পরে হোটেলে ফিরেছিলাম। সেখানে পার্টি হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু গিয়ে দেখি কেমন যেন ফাঁকা ফাঁকা। দরজায় টোকা মারতেই একজন পুরুষ বেরিয়ে এলেন। পরনে স্রেফ তোয়ালে। একটু খেয়াল করে দেখলাম ভিতরে বিছানায় আরো দু’জন মডেল শুয়ে, তাও সম্পূর্ণ নগ্ন।’

pinkposh_boudoir07

অন্য মডেল বলেন, ‘আপনি বিবাহিত কি না, তার উপরে কিছুই নির্ভর করে না। কুপ্রস্তাব আপনার কাছে আসবেই। একবার আমি ভুল করে পুরুষদের চেঞ্জিং রুমে ঢুকে পড়েছিলাম। সেখানে সকলেই নগ্ন হয়ে ছিলেন। এখানে বলে রাখা ভালো, নগ্নতা কিন্তু ফ্যাশন দুনিয়ায় একটা স্বাভাবিক ব্যাপার। আমি ‘দুঃখিত’ বলে বেরিয়ে আসছিলাম। সেই সময়ই পিছন থেকে আমাকে বলা হয়- “চিকেনও খেয়ে নাও! প্রতিদিন কি আর ডাল-ভাত ভালো লাগে?”’

তিনি বলেন, ‘বয়সটাও কোনো ব্যাপার নয়। ওরা যেটা চায়, সেটা হল শরীর। এই শরীরটাকে নিয়ে ওরা যা ইচ্ছা তা-ই করবে। এটাই যে দস্তুর।’

Comments

comments

Leave a Reply

Scroll To Top