সারার মেজাজে অস্থির ‘কেদারনাথ’-এর টিম!

সোশ্যাল মিডিয়ায় ঢাকঢোল পিটিয়েই সম্প্রতি শুরু হয়েছে ‘কেদারনাথ’-এর শুটিং। এই ছবির মাধ্যমেই সুশান্ত সিং রাজপুতের সঙ্গে জুটি বেঁধেই বলিউডে অভিষিক্ত হচ্ছেন সাইফ আলী খানের মেয়ে সারা আলি খান। উত্তরাখণ্ডে ছবির শুটিং শুরু হয়েও গিয়েছে। কিন্তু প্রথম ছবিতেই নাকি তারকা-কন্যার মেজাজের চোটে অস্থির কলাকুশলীরা।

এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, প্রথম ছবির শুটিং ফ্লোরে নাকি ইতিমধ্যেই ‘ট্যানট্রাম’ দেখাতে শুরু করেছেন সারা। ইতিমধ্যে শুটিং ফ্লোরে দেরিতে আসতে শুরু করেছেন। আসার পর আবার প্রচুর সময় নিয়ে মেকআপ করছেন। এখানেই শেষ নয়।

মেকআপ শেষ হওয়ার পর নিজের সেলফি তুলছেন নানা দিক থেকে। সেই ছবি আবার হোয়াটসঅ্যাপ মারফত কাউকে পাঠাচ্ছেন। তারপর সেখান থেকে সম্মতি এলে তবেই শুটিং শুরু করছেন। আবার সম্মতি না এলে নতুন করে মেকআপ করার আবদার করছেন সারা। সারার এই ব্যবহারে নাকি বেজায় ক্ষুব্ধ ‘কেদারনাথ’-এর কলাকুশলীরা।

এ বিষয়ে অনেকেই পরিচালক অভিষেক কাপুরের কাছে অভিযোগ জানিয়েছেন। পরিচালকও নাকি আলাদা করে সারাকে বোঝানোর চেষ্টা করেছেন। সারাকে বলেছেন, তাঁর বাবা-মা দু’জনেই বলিউড তারকা হতে পারেন। কিন্তু তাঁকে বি-টাউনের মাটিতে জমি পেতে গেলে এমন বদমেজাজ ত্যাগ করতে হবে। আর সকলের সঙ্গে ভাল সম্পর্ক রাখতে হবে।

সকলের সহযোগিতাতেই একটা ভাল ছবি তৈরি হতে পারে। ছবি ভাল হলে তবেই তা প্রেক্ষাগৃহে দর্শক টানবে। আর হিটের তকমা পাবে। তাই সাফল্য পেতে গেলে ফ্লোরে সকলের সঙ্গে ভাল ব্যবহার করতে হবে সারাকে। কিন্তু পরিচালকের এ কথায় নাকি কানই দেননি নবাব-কন্যা। তাঁর সেলফি পাঠানোর পালা এখনও অব্যাহত রয়েছে। এ সেলফি তিনি কাকে পাঠান কেউ জানেন না। তবে উত্তর না পেলে নাকি তিনি শট দিতে আসেন না।

Comments

comments

Scroll To Top